চূড়ান্ত হলো জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের অনলাইনে পরীক্ষা গ্রহণের নীতিমালা

  ইউছুব ওসমান, জবি সংবাদদাতা :  মঙ্গলবার | আগস্ট ৩১, ২০২১ | ১২:০০ এএম

চূড়ান্ত হয়েছে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের (জবি) অনলাইনে পরীক্ষা গ্রহণের নীতিমালা। ৫০ শতাংশ নম্বরের মধ্যে কোর্সগুলোর পরীক্ষা হবে। পরীক্ষার সময় কমিয়ে অর্ধেক করা হয়েছে। তবে খাতা মূল্যায়নের ক্ষেত্রে পরীক্ষায় প্রাপ্ত নম্বর দ্বিগুণ করে ফলাফল প্রকাশ করা হবে। তবে সরকারের বিশ্ববিদ্যালয় খোলার সিদ্ধান্ত দেখে পরীক্ষা গ্রহণের সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। মঙ্গলবার (৩১ আগস্ট) বিশ্ববিদ্যালয়ের ৫৫তম একাডেমিক কাউন্সিলের সভায় এসব সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। 

বিজ্ঞান অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড.  রবীন্দ্রনাথ মন্ডল বলেন, "অনলাইন পরীক্ষার নীতিমালা সুপারিশ করা হয়েছে। সিন্ডিকেটে তা পাশ হবে।  অক্টোবরের মাঝামাঝি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার একটা হিন্টস্ দিয়েছে সরকার। বিশ্ববিদ্যালয় খোলা সম্ভব হলে আমরা অফলাইনেই পরীক্ষা নেবো। অফলাইনে নেওয়া না গেলে আমরা অনলাইনে পরীক্ষা গ্রহণের  নীতিমালা চূড়ান্ত করেছি সেই অনুসারে পরীক্ষা হবে।

তিনি আরও বলেন, "বিশ্ববিদ্যালয় খোলার সম্ভাব্য তারিখ বা পরীক্ষার তারিখ সম্পর্কে কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি, তাই সেটা এখনই বলতে পারছি না। পরবর্তী সভায় এবিষয়ে সিদ্ধান্ত হতে পারে।"

সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড. অরুণ কুমার গোস্বামী বলেন, "অনলাইনে পরীক্ষা গ্রহণের নীতিমালা চূড়ান্ত হয়েছে। সিন্ডিকেটে পাশ হবে। সেপ্টেম্বরের মধ্যে বিশ্ববিদ্যালয় খোলা সম্ভব না হলে নীতিমালা অনুসরণ করে অনলাইনেই পরীক্ষা গ্রহণ করা হবে।"

আইন অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড. সরকার আলী আক্কাস বলেন, "অনলাইন পরীক্ষার নীতিমালায় অনেকগুলো বিষয়ই আছে। কিভাবে পরীক্ষা গ্রহণ করা হবে, শিক্ষার্থীরা কিভাবে পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করবে, কিভাবে পরীক্ষার খাতা জমা দিবে, কিভাবে খাতা মূল্যায়ন করা হবে এসব বিষয় অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে।  যেমন, আমাদের মিটিং করতে করতেও তো ইন্টারনেট চলে যায়, কারেন্ট চলে যায়, তখন আমরাও ডিসকানেক্ট হয়ে যাই। পরীক্ষার সময় যদি কোনো শিক্ষার্থী পরীক্ষা দিতে দিতে ডিসকানেক্টেড হয়ে যায় তাহলে পাঁচ মিনিটের ভিতরে দায়িত্বরত শিক্ষককে জানাতে হবে। তখন তাদেরকে আমরা আবার পরীক্ষা নেওয়ার ব্যবস্থা করবো। এবিষয়টিও অনলাইন পরীক্ষার নীতিমালার মধ্যে অন্তর্ভুক্ত রয়েছে।"

বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. ইমদাদুল হক বলেন,  "অনলাইন পরীক্ষার নীতিমালাটি একাডেমিক কাউন্সিলে অনুমোদন পেয়েছে। এরপর এটি আগামী সোমবার সিন্ডিকেট সভায় অনুমোদন দেয়া হবে। অনলাইনে পরীক্ষা ৫০ শতাংশ নম্বরের পরীক্ষা হবে, পরবর্তীতে তা কনভার্ট করে দেয়া হবে। 
আমাদের ছাত্ররাও এতোটা প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত না। এজন্য সময় কম করে সেইভাবে পরীক্ষা নেয়া হবে।"

তিনি আরও বলেন,  "আমরা সরকারের বিশ্ববিদ্যালয় খোলার সিদ্ধান্ত দেখে পরীক্ষা পদ্ধতির সিদ্ধান্ত নিবো। সরকারি সিদ্ধান্ত ছাড়া আমরা খুলতে পারবো না। নীতিমালা সিন্ডিকেটে পাশ হলে আমরা দেখবো সরাসরি নেয়া যায় কি না। সরাসরি নেয়া গেলে আমরা সরাসরিই পরীক্ষা নিবো। আর বিশ্ববিদ্যালয় না খোলা গেলে অনলাইনে পরীক্ষা নিবো। তা অবশ্যই চার সপ্তাহ আগে নোটিশ দিয়ে।"